খোকসায় জামাইয়ের রহস্যজনক মৃত্যু

খোকসা সংবাদদাতা:
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ২১ আগস্ট, ২০২০
  • ৪৪ বার নিউজটি পড়া হয়েছে

কুষ্টিয়ার খোকসা উপজেলার গনেশপুর গুচ্ছগ্রামের আলী কবিরাজের জামাই আবু তাহের (২৫) বৃহস্পতিবার রাত আনুমানিক একটার দিকে শ্বশুর বাড়িতে এসে স্ত্রীর সঙ্গে অভিমান করে গলায় ফাঁসি দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে।

 

জানা যায় পাংশা উপজেলার মাছপাড়া ইউনিয়ন এর নাচনা মুরাদপুর গ্রামের মোহাম্মদ বারিক শেখের ছেলে আবু তাহের (২৫) এর সঙ্গে গনেশপুর গুচ্ছগ্রামের আলী কবিরাজের মেয়ে ঝর্না খাতুন (২২) এর সঙ্গে গত আট বছর আগে তাদের বিবাহ হয় এবং তাদের সংসারে একটি ৫ বছরের পুত্র সন্তান আছে বলে জানা যায়। স্ত্রী ঝর্না খাতুন পুলিশের সাক্ষাৎকারে বলেন আমার স্বামী দীর্ঘদিন যাবৎ বিভিন্ন নেশার সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন আমার সংসারে অশান্তির সৃষ্টি হয়। তাই আমি শ্বশুর বাড়ি থেকে আমার বাবা-মায়ের বাসায় চলে আসি। এক সপ্তাহ পরে আমার স্বামী আমাকে নিতে আসে আমি নেশাখোর আবু তাহের’র সংসার করব না বলে তাকে চলে যেতে বলি। তারপর সে অভিমান করে আমাদের বাড়ির পাশে গলায় ফাঁসি দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

 

খোকসা থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ জহিরুল আলম’র জিজ্ঞাসাবাদে মৃত আবু তাহেরের গ্রামের ইউপি সদস্য সহ গ্রামবাসীর কাছে মৃত ব্যক্তি শরীরের কোন আঘাতের চিহ্ন বা কোনো ক্ষত চিহ্ন পাওয়া যায়নি বলে তারা জানিয়েছেন। শুধু মৃত তাহেরের বাবা বারিক সেখ বলেন আমার সন্তানকে তারা নির্মমভাবে হত্যা করেছে এ বিষয়ে খোকসা থানা অফিসার ইনচার্জ অপমৃত্যুর পাশাপাশি একটি অভিযোগ নিয়েছে।

 

পরে আজ দুপুরে মামলার সঠিক তদন্তের জন্য লাশটি ময়নাতদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে, পোসমডেম রিপোর্ট অনুযায়ী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবে বলে জানিয়েছেন। খোকসা থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ জহুরুল আলম

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর ....
x